Header Ads

কবিতাঃ চৌকিদার চল্লিশা

চৌকিদার চল্লিশা

                 ------দ্বারক ঘোষ 

মানুষ যখন শঙ্কাতে
দিলাম বারি ডঙ্কাতে।

নিলাম বাবু ছ-আনা 
যা নিবি তাই ছ-আনা।

সম্পদ যা সরকারি 
আর বুঝি নয় দরকারী !

জাত বেনিয়া যায় মানি 
বেনিয়াদের তাই দানি ।

কয়লাখনি রেল যত---
খেলটা দেখায় নিজ মতো।

সুযোগ বুঝে দিই বেচে 
পাছে যদি যায় কেঁচে !

ধম্ম দিয়ে চোখ বেঁধে 
কুমীর কাঁদন যাই কেঁদে ।

মরুক মানুষ না খেয়ে 
উঠুক জাতের গান গেয়ে ।

জাতের পোকা দিই গুঁজে 
জাতটা জপুক চোখ বুজে ।

চড়লে বাজার,বাড়লে দাম
মরবে বেজাত,বাড়বে নাম।

কাজ হারিয়ে ধুঁকুক দেশ
মিষ্টি গদির থাকুক রেশ !

দ্রব্যে আগুন যাক ছুঁয়ে 
ন্যুব্জ শরীর যাক নুয়ে ।

যাক বন্যায় দেশ ডুবে 
আঁধার ঘনাক মন-পুবে ।

মাতৃক্রোড়ে ছেলের লাশ 
দেশটা জুড়ে সর্বনাশ !

ক্ষুধার জ্বালা কই মানে ?
মৃত মায়ের হাত টানে !

'বেটি বাঁচাও' জয় গানে
ক্ষুধার মেয়ে  চোখ টানে !

শিক্ষাটারও ষষ্টি পুজো---
কম্ম সারি,আমায় ভজো !

চৌকিদারের জয়ধ্বনি 
তুলরে ওরে একটু শুনি।

জয় জয় জয় চৌকিদার
শিক্ষা(!) পূর্ণ সবাকার !

তোরা সবাই গরুর পো
ভাবনাখানা মাথায় থো ।

অধিকারের তুললে দাবি 
মাঝ নদীতে খাবো খাবি।

তাইতো তোদের গরু ক'রে 
রাখি রে দুর্বুদ্ধি জোরে ।

করলে গরু অনেক লাভ
গরুর দুধে সোনার ভাব ।

গোময়-মূত্র ওষুধ সেটা--- 
জানিস না তা?মুখ্যু বেটা!

ভাইরে কেন আর তবে 
হাসপাতালটা রাখা হবে ?

ওষুধপাতি নাই মিলুক 
মন্দির আর জাত গিলুক ।

অতিমারীর এই কোপে
সুযোগ বুঝে কোপ ঝোপে !

মন্দির তা নাই দেশে !
ঘুমটা বুঝি যায় শেষে !

'নাই চিন্তার' নাইকো শেষ---
আশীর্বাদির জনাদেশ (!)

রাম মন্দির !শিলান্যাস
আর কিটা  চাই ?এই তো ব্যাস!

হাজার কোটির মন্দিরে 
চোখ ঘুরানোর ফন্দি রে !

ওরে মানুষ, বুঝবি না ?
বুঝবি কবে বুঝবি তা !

তোর খাঁচাতে মনটি রয়----
সেটি কি তোর মন্দির নয় !

সেই মনেরে মানুষ কর্
হাল্কা বুকে পাবি ভর ।

No comments

Powered by Blogger.